আমাদের নারায়ণগঞ্জ

পান পাতার নানান গুণ!

পান পাতার গুণ

Share This Post

ভরপেট ভোজনের পর পান খাওয়ার চল এদেশের অনেক বাড়িতে এখনও ছালু আছে। কারো কারো নিত্য অভ্যাস হচ্ছে পান আর কেউ আবার খান শখের বসে আনুষ্ঠানিকতার জন্য। কেউ খান  মিঠাপান, আবার কারো চুন, সুপারি হলেই হল। বরতমান সময়ে বিভিন্ন ফ্লেভারের পানও বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠছে। তবে পান কি শুধুই শখ নাকি মুখের রুচি? না পানের আছে অনেক ঔষূধী গূণ। 

 

চিকিৎসকদের মতে, পান আনেক শারীরিক সমস্যা হতে দূরে রাখতে পারে। পান যেসব স্বাস্থ্য সমস্যা থেকে মুক্তি দেয় সেগুল হলঃ 

 

কোষ্ঠকাঠিন্য সারাতে সাহায্য কর 

পান পাতা আছে ভরপুর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, যা শরীরে পিএইচ লেভেল স্বাভাবিক রাখে এবং পেটের সমস্যা থেকে মুক্তি দেয়। বিশেষ করে, যারা কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যাায় ভুগছেন, তাদের জন্য পান খুব উপকারী। পান পাতা পিষে সারারাত পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। পরদিন সকালে পান পাতা ভেজা পানি ছেঁকে খালি পেটে খেয়ে ফেলুন করুন। 

 

মুখের দুর্গন্ধ দূর করে  

পান পাতায় রয়েছে অ্যান্টিমাইক্রোবিয়াল গুনাগুন, যা মুখের দুর্গন্ধ, দাঁত হলুদ হওয়া, প্লাক এবং দাঁতের ক্ষয় রোধ করে। খাবার পর, বিশেষ করে দুপুরের খাবার পর পান চিবিয়ে খেলে মুখের স্বাস্থ্য ভাল থাকে। দাঁতের ব্যথা, মাড়ির ব্যথা, ফোলাভাব এবং ওরাল ইনফেকশনও দূর করতেও পান পাতার জুরি নেই। পুষ্টিবিদদের মতে, পানের অ্যান্টিসেপটিক গুনাগুন মুখের ব্যাকটেরিয়ার বৃদ্ধি রোধ করে। 

 

শ্বাসনালীর জন্য উপকারী 

সর্দি-কাশি সারাতে পান অনেক বেশী উপকারী। আয়ুর্বেদ শাস্ত্র মতে, কাশি, ব্রঙ্কাইটিস এবং হাঁপানির মতো শ্বাসকষ্টজনিত রোগের নিরাময়ে পান অনেক উপকারী। পান পাতা এই সব সমস্যায় খুবই কার্যকরী।

মানসিক চাপ কমায়

পান পাতা চিবিয়ে খেলে  মানসিক চাপ ও দুশ্চিন্তা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। এটি শরীর ও মনকে শান্ত করে এবং ঘন ঘন মন খারাপ বা মন আশান্ত হয়ে যাওয়া দূর করে। 

 

ডায়াবেটিস রোগ নিয়ন্ত্রণ করে 

পানে রয়েছে অ্যান্টি-হাইপারগ্লাইসেমিক গুণাগুণ, যা রক্তে শর্করার মাত্রা নিয়ন্ত্রণে কাজ করে। পান রক্তে গ্লুকোজের পরিমাণ বৃদ্ধি রোধ করে। টাইপ ২ ডায়াবেটিস রোগীরা সকালে খালি পেটে পান পাতা চিবিয়ে খেলে অনেক উপকার পাবেন। 

 

হজম শক্তি বৃদ্ধিতে সহায়তা  করে 

পান চিবিয়ে খেলে হজম ভাল হয়। গ্যাস ও এসিডিটি এর সমস্যাও কমে। গ্যাসট্রিকের ব্যথা উপশমেও সাহায্য করে পান পাতা।

 

বাতের ব্যথা কমায়

পানের পাতায় রয়েছে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি বা প্রদাহ বিরোধী গুনাগুন, যা হাড় এবং জয়েন্টর পেইন বা গীড়ার ব্যথা থেকে স্বস্তি দেয়। আর্থ্রাইটিস, অস্টিওপরোসিসের ব্যথা কমাতেও  পান পাতা বিশেষ কার্যকর।

 

Subscribe To Our Newsletter

Get updates and learn from the best

More To Explore

Explore: How to Make the Most of Your Life with Food, Fashion and Fun

Health and Beauty